নিউজ/বিবৃতি

১১ ফেব্রুয়ারি ২০২২ শুক্রবার রাজধানীর ভাটারাস্থ এক মিলনায়তনে ইসলামী ছাত্র আন্দোলন বাংলাদেশের কেন্দ্র নিয়ন্ত্রিত শাখা প্রতিনিধি সভায় ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর মহাসচিব মাওলানা ইউনুস আহমাদ প্রধান অতিথির বক্তব্যে অভিযোগ করে বলেন, মুখস্থ, পরীক্ষা নির্ভর ও সার্টিফিকেট সর্বস্ব শিক্ষার পথে হাঁটছে সরকার।

করোনা অযুহাতে দীর্ঘদিন ক্লাস না করেই কেবল পরীক্ষা নির্ভরতার মাধ্যমে সেশন সমাপ্ত করার পরিকল্পনা করা হয়েছে। পরীক্ষা বা সার্টিফিকেট নির্ভর এ ধরনের শিক্ষা শুধু পরিবার নয়, জাতির জন্য বোঝা হয়ে দাঁড়ায়। বেকারত্বের হারকে দীর্ঘ থেকে দীর্ঘ করে তোলে। এর জন্য করোনা পরিস্থিতি যতটা না দায়ী, তার চেয়ে বেশি দায়ী শিক্ষা নিয়ে সরকারের সুষ্ঠু পরিকল্পনা না থাকা।

ইসলামী ছাত্র আন্দোলন বাংলাদেশ -এর কেন্দ্রীয় সভাপতি নূরুল করীম আকরাম সভাপতির বক্তব্যে বলেন, শিক্ষাখাতের ক্ষতি জাতির অস্তিত্বকে হুমকির মুখে ফেলবে। জাতি হিসেবে আমরা মাথা উঁচু করে দাঁড়াবার শক্তিটুকু হারিয়ে ফেলব। এ সময় তিনি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান সম্পূর্ণরূপে উন্মুক্ত করে নিয়মতান্ত্রিক ক্লাস ও শিক্ষা কার্যক্রম চালুর বিষয়ে দ্রুত ব্যবস্থা নেয়ার আহ্বান জানান।

সারাদেশের জেলা ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান কমিটির প্রতিনিধিদের নিয়ে আয়োজিত অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন সেক্রেটারি জেনারেল শেখ মুহাম্মাদ আল-আমিন।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন ইসলামী ছাত্র আন্দোলন বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি শরিফুল ইসলাম রিয়াদ, সাংগঠনিক সম্পাদক ইবরাহীম হুসাইন মৃধা, প্রশিক্ষণ সম্পাদক নূরুল বশর আজিজী, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক সুলাইমান দেওয়ান সাকিব, দফতর সম্পাদক সিরাজুল ইসলাম, প্রচার ও আন্তর্জাতিক সম্পাদক মুনতাছির আহমাদ, বিশ্ববিদ্যালয় সম্পাদক মাহবুব হোসেন মানিক, প্রকাশনা সম্পাদক আল আমিন সিদ্দিকী, মাদরাসা সম্পাদক মিশকাতুল ইসলাম, স্কুল ও কলেজ সম্পাদক শফিকুল ইসলাম, কেন্দ্রীয় সদস্য মাহবুবুর রহমানসহ উপ-সম্পাদক ও শুরা নেতৃবৃন্দ।

member form

Fill in your details and we’ll get back to you in no time.